আমাদের দেশে সামাজিক মদ্যপান নিষিদ্ধ। দেশের বিশেষ কিছু ক্লাব, দেশজুড়ে স্বল্পসংখ্যক একজনআরেকজনেরমুখদেখতেনাপাওয়া লাইসেন্সধারী অন্ধকার বার এবং কয়েকটা বার লাইসেন্স পাওয়া হোটেল : মদ কেনা বেচা খাওয়া সব এই কয়েকটা জায়গা ছাড়া আর সবখানে বেআইনি। তাই লুকিয়ে চুরিয়ে মদ্যপানই আমাদের সংস্কৃতি। আর মদ জোগাড় করা ও তা নিয়ে নির্দিষ্ট গন্তব্যে পৌঁছানো, হেরোইন জোগাড় ও বহন থেকেও ভীতিকর ব্যাপার। মদ খাওয়ার সবচেয়ে বড় দিক সামাজিক আনন্দ, তা কখনোই গাঁজা, ডাইল, হেরোইনের মতো একক নেশায় চুর হওয়ার অস্ত্র নয়। যদিও মদ খেয়েও নেশাগ্রস্ত হওয়া যায় কিন্তু মদ খেলেই যে নেশা হয় তা নয়। অবশ্য সামাজিকভাবে নিষিদ্ধ করায়, মদের সামাজিক আনন্দ নষ্ট হওয়ায়, খেয়ে মোদোমাতাল হওয়ার প্রবণতা এখানে খুবই বেশী।

আমরা যখন এক বোতল রেড লেবেল হুইস্কি কিনতে চাই তখন আমাদের ২৮০০ থেকে ৩০০০ টাকা পর্যন্ত খরচ করতে হয়, এরপর এটি নিয়ে যেভাবে গন্তব্যে পৌঁছতে হয়,কলেজ বিশ্ববিদ্যালয়ের জীবনে অনেকের কাছে তা বেশ রোমাঞ্চকর মনে হলেও, কর্মজীবনের কর্মব্যস্ততার মধ্যে এসব ঝক্কি যে চরম অসম্মানের তা যে কেউ স্বীকার করবেন, আশা করি। সবচেয়ে দু:খজনক একটা অতিসাধারণ বিয়ার যখন ৩৫০ থেকে ৪৫০ দিয়ে কিনতে হয়, তখন সত্যিই চরম নিরানন্দ এই সামাজিক জীবনের অসম্মান সহ্য করা যে কোনো সংবেদনশীল মানুষের জন্যই অসম্ভব বেদনাদায়ক হয়ে উঠতে পারে।

এ অসম্মান থেকে উত্তরণ হবে কী করে

আসলে খুব দ্রুত মদ কেনা বেচা ও খাওয়ার অনুমতি প্রাথমিকভাবে বড় রেস্টুরেন্টগুলোকে দিয়ে দেয়া উচিত(অবশ্যই শুধু খাওয়ার সাথেই তা বিক্রি ও পরিবেশন করা হবে, এবং একটি রেস্টুরেন্ট তার চাহিদা অনুযায়ী বিয়ার ও ওয়াইন কিনবে)। খাওয়া দাওয়ার সাথে মদ, খাওয়াকে আরো আকর্ষণীয় করে। এ এক চরম দুর্দশা যে, একটা চমৎকার শিককাবাব বিয়ার ছাড়া খেতে হচ্ছে আর চিংড়ির মালাইকারির সাথে থেকে থেকে চুমুক পড়ছে না লাল বা সাদা ওয়াইনে। এই উদ্যোগ নি:সন্দেহে সামাজিক আনন্দ বাড়াবে, অবশ্যই ডাইলের উপদ্রব কমাবে। অনেকটা খেলাধূলার সুযোগ থাকার মতো, যেখানে এ সুযোগ থাকে সেখানে অপরাধপ্রবণতা কম থাকে।

এর পাশপাশি চালু করা উচিত পাব। পাব হলো মদ খাওয়ার কাফে। এখানে আর খাওয়া দাওয়া মূখ্য নয়, মদ খাওয়াটাই মূখ্য। পাব চালু হলে আমাদের দেশের বেঢপ, বিশাল, অন্ধকার, অপরাধবোধ জাগানো বারগুলো বন্ধ করে দেয়া উচিত। পাবও তার চাহিদা অনুযায়ী বিয়ার, ওয়াইন, হুইস্কি, জিন, ভদকা,রাম কিনবে এবং শুধুমাত্র পাবেই খাওয়ার জন্য বিক্রি করবে।

এবং দুই ক্ষেত্রেই অবশ্যই মদ বিক্রি করতে হবে এখনকার চেয়ে অন্তত আড়াই গুণ কম দামে। প্রাথমিকভাবে কেউই বাইরে নেবার জন্য মদ কিনতে পারবেন না, অবশ্য পার্টির উদ্দেশ্যে রেস্টুরেন্ট ক্যাটারিং সেবা নিয়ে যে কেউ চাহিদা অনুয়ায়ী মদ নিজের আয়োজিত সামাজিক অনুষ্ঠানে পরিবেশন করতে পারবেন।

এভাবে চলতে চলতে সবকিছু এমন পর্যায়ে চলে যাবে তখন শুরু হয়ে যাবে লিকার শপ, যেখান থেকে যে কেউ যখন তখন কিনতে পারবে বিভিন্ন ধরনের মদ।

তখন শুরু করতে হবে নানা নতুন সামাজিক পরিসংখ্যান : কে কত বেশী খাচ্ছে, কীভাবে খাচ্ছে, কারো কারো মদ খাওয়া সামাজিক হুমকি তৈরী করছে কি না, ট্রাফিক পুলিশদের কর্মতৎপরতা আরো কত বাড়ানো যায় সেই লক্ষ্যমাত্রা নির্ধারণ। তবে যাই কিছু হোক অসম্মানের কিছুই সেখানে ঘটবে না, এটা নিশ্চিত মানুষকে মদ খেতে না দেয়াই অসম্মানের, কম খাওয়ার জন্য নানা পদক্ষেপ গ্রহন মোটেই অসম্মানের নয়, বরং সেটা আরো সম্মানের, কারণ, তাতে বোঝা যায়, সমাজ তার মানুষকে নিয়ে কত নিয়োজিত।

এ লেখার একটি বড় পাদটীকা আছে : এতক্ষণ আমরা যে সামাজিক আনন্দের কথা আলোচনা করলাম, তার কোনো তাৎপর্যই থাকবে না, যদি না আমাদের সমাজ রাষ্ট্র সরকার, পৃথিবীর সবচেয়ে বড় সামাজিক আনন্দ, কর্মসংস্থানের উত্তরোত্তর বৃদ্ধি ঘটাতে পরিকল্পিত কর্মযজ্ঞ শুরু না করে।

মাসুদ করিম

লেখক। যদিও তার মৃত্যু হয়েছে। পাঠক। যেহেতু সে পুনর্জন্ম ঘটাতে পারে। সমালোচক। কারণ জীবন ধারন তাই করে তোলে আমাদের। আমার টুইট অনুসরণ করুন, আমার টুইট আমাকে বুঝতে অবদান রাখে। নিচের আইকনগুলো দিতে পারে আমার সাথে যোগাযোগের, আমাকে পাঠের ও আমাকে অনুসরণের একগুচ্ছ মাধ্যম।

৩৯ comments

  1. নওরীন তামান্না - ৫ নভেম্বর ২০০৮ (২:০৭ অপরাহ্ণ)

    মজার এবং ‘দরকারী’ এই পোস্টটির জন্য অনেক ধন্যবাদ মাসুদ করিমকে। বিষয়বস্তু হিসেবে পোস্টটিকে “মানবীবিদ্যা”র অন্তর্ভূক্ত করেছেন দেখলাম। “মানবীবিদ্যা” বিষয়টিকে কি একটু ব্যাখ্যা করা যায়? খুবই ইন্টারেস্টিং মনে হচ্ছে।

    • মাসুদ করিম - ৬ নভেম্বর ২০০৮ (৩:০৪ পূর্বাহ্ণ)

      মানবীবিদ্যা ইংরেজী Humanities এর অনুবাদ। Humanities:the branches of learning (as philosophy, arts, or languages) that investigate human constructs and concerns as opposed to natural processes (as in physics or chemistry) and social relations (as in anthropology or economics).মানবীবিদ্যার অর্ন্তভূক্ত করেছি কারণ সামাজিক মদ্যপানের মধ্য দিয়ে একটি সমাজের গড়ন ও সমাজের আন্তসম্পর্কের অনেকিকছুই জানা যায়।

      • রেজাউল করিম সুমন - ৮ নভেম্বর ২০০৮ (১০:২১ পূর্বাহ্ণ)

        Humanities-এর অনুবাদ হিসেবে চালু আছে মানববিদ্যা, মানবিকবিদ্যা বা মানবিকীবিদ্যা। মানবীয়বিদ্যাও হয়তো চলতে পারে। কিন্তু এর বিকল্প হিসেবে মানবীবিদ্যা কি ঠিক হবে? মানবীবিদ্যা তো এরই মধ্যে Women Studies-এর বাংলা হিসেবে স্বীকৃতি পেয়েছে।
        আপনার লেখাটিতে ভাবনার খোরাক আছে। ধন্যবাদ।

  2. পার্থ সরকার - ৬ নভেম্বর ২০০৮ (৪:৪৫ পূর্বাহ্ণ)

    যেখানে খেলাধুলার সুযোগ থাকে, সেখানে অপরাধ প্রবণতা কম থাকে, এর চেয়ে বড় সত্যি আর কি হতে পারে?

  3. মিঠুন দস্তিদার - ৬ নভেম্বর ২০০৮ (১২:৩৪ অপরাহ্ণ)

    খুবই সাহসী লেখা। আমাদের এই ভন্ডামী যে কবে বন্ধ হবে?

  4. মাসুদ করিম - ৯ নভেম্বর ২০০৮ (২:২৩ পূর্বাহ্ণ)

    @রেজাউল করিম সুমন
    তৈরী শব্দের জঙ্গলে পথ হারিয়েছিলাম । আপনার কল্যাণে বাঁচা গেল।
    তবে dictionary খুঁজতে গিয়ে দেখি Women studies বলে কিছু নেই, আছে women’s studies: (Function–noun plural but singular or plural in construction)the multidisciplinary study of the social status and societal contributions of women and the relationship between power and gender . এর বাংলা হিসেবে ‘নারীবিদ্যা’ কি প্রচলিত? নাকি এটা অন্য কোনো বিদ্যার জন্য আগেই ব্যবহৃত? তা যদি না হয়, তাহলে ‘নারীবিদ্যা’ ব্যবহার ভাষার চলনের জন্য অনেক ভালো।

  5. রেজাউল করিম সুমন - ১০ নভেম্বর ২০০৮ (১০:১১ পূর্বাহ্ণ)

    ঠিকই বলেছেন, women and gender studies, কিন্তু women’s studies. ধন্যবাদ।
    ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের Department of Women and Gender Studies-এর বাংলা নাম আমার জানা নেই। আর পশ্চিমবঙ্গের যাদবপুর বিশ্ববিদ্যালয়ের School of Women’s Studies-এর নাম বাংলায় সম্ভবত প্রতিবর্ণীকরণ করেই লেখা হয়। ওই প্রতিষ্ঠান থেকে প্রকাশিত দু-একটি বইয়ে সেরকমই দেখেছি বলে মনে পড়ছে। তবে ওয়েবসাইটে গিয়ে দেখা গেল ওই কেন্দ্রটির একটি অনুষ্ঠানের ব্যানারে লেখা হয়েছে “মানবীবিদ্যা চর্চাকেন্দ্র”।
    Feminism-এর বাংলা প্রতিশব্দ হিসেবে “নারীবাদ” প্রচলিত; women’s studies-কে “নারীবিদ্যা” বলতে কোনো বাধা থাকার কথা নয়। তবে পরিভাষা হিসেবে যে-কোনো একটি শব্দকে বেছে নেয়াই ভালো, বিশেষত “মানবীবিদ্যা” যদি এরই মধ্যে চালু হয়ে গিয়ে থাকে।

  6. সৈকত আচার্য - ১১ নভেম্বর ২০০৮ (৮:৫১ অপরাহ্ণ)

    দরকারী কথা বলার এই সাহসের জন্য, আমাদের সমাজ এখনও আপনাকে পুরস্কার দিতে প্রস্তত নয়। বরং তৈরী থাকুন, কোন এক ছোটখাট অপবাদ মাথায় নেয়ার জন্য। আলো আঁধারী ঘরের ঐ বাসিন্দারাও আপনার সাথে না থাকলে অবাক হবেন না যেন, বলে দিলাম কিন্ত। তাদেরও তো একটা সমাজ আছে, নাকি!

    • মাসুদ করিম - ১৫ নভেম্বর ২০০৮ (৫:১৯ অপরাহ্ণ)

      সমাজ সংসার মিছে সব মিছে এ জীবনের কলরব। সেই আকাঙ্ক্ষা সেই নির্দোষ আনন্দের অনুভূতি যদি আপনাকে অভিভূত করে, তবে সে রকমটাই থাকুন, সমাজকে কিছু মূহুর্তের জন্য হলেও, কার্নিভালে উন্মত্ত দেখুন,ভালো লাগবে। উল্লাস অন্ধকারে কেন, সে তো রাজপথে উপভোগ করবার, জানাবার আমি তোমাকে সে তাহাকে সবাই সকলকে, জলাভরণ হুইস্কি, হিমশীতল লেবুবুদ ভদকা, এ বটল অফ রাম, আর্দ্র আর্দ্র শুষ্ক জিন, খাওয়ার টেবিলে গভীর শ্বাসে নেয়া জিভ টাগরা ভিজিয়ে দেয়া লাল বা সাদা ওয়াইন, তিক্ত উচ্ছাসের কোমল শীতলতার প্রিয়তম বিয়ার, এদের আপনি অন্ধকারে নেবেন কেন?

  7. মোহাম্মদ মুনিম - ২ সেপ্টেম্বর ২০০৯ (১০:৪০ পূর্বাহ্ণ)

    ইন্টারনেটে দেখলাম পাকিস্তানে সত্তুরের দশক পর্যন্ত মদ্যপান বৈধ ছিল, এটা আগে জানা ছিল না। তার মানে আমাদের দেশে ৭১ সাল পর্যন্ত মদ্যপান বৈধ ছিল। নিষিদ্ধ করলো কোন সরকার, এটা জানা নেই। কেন করলো?

    • মাসুদ করিম - ১৪ অক্টোবর ২০১০ (৬:১১ অপরাহ্ণ)

      পড়ছিলাম শাহরিয়ার কবিরের প্রবন্ধ ধর্মনিরপেক্ষ সংবিধানের প্রয়োজনীয়তা এবং জামায়াতের রাজনীতি,এখানেই যে আপনার প্রশ্নের [নিষিদ্ধ করলো কোন সরকার, এটা জানা নেই। কেন করলো?] উত্তর পাব ভাবিনি। কবির লিখছেন

      বঙ্গবন্ধু ব্যক্তিজীবনে ধর্মপরায়ণ ছিলেন। ইসলাম ধর্মে নিষিদ্ধ বলেই তিনি ঘোড়দৌড়ের নামে জুয়াখেলা এবং শুঁড়িখানা বন্ধ করে দিয়েছিলেন, যা ইসলামী রাষ্ট্র পাকিসত্মানে পূর্ণোদ্যমে চালু ছিল। কিন্তু বঙ্গবন্ধু এবং তাঁর সহযোগীরা রাষ্ট্রের ধর্মনিরপেক্ষ চরিত্র অটুট রাখার জন্য ধর্মের নামে, রাজনীতি বা ধর্মের রাজনৈতিক ব্যবহার নিষিদ্ধ করেছিলেন, যা যুক্তরাষ্ট্র, ফ্রান্স, তুরস্ক বা ভারত করতে পারেনি। এ কাজটি বাংলাদেশের পক্ষে সহজ ছিল এ কারণে যে, মুক্তিযুদ্ধকালে সংঘটিত নৃশংসতম গণহত্যা, নারীধর্ষণ, লুণ্ঠন ও নির্যাতনসহ যাবতীয় মানবতাবিরোধী অপরাধ ও যুদ্ধাপরাধ সংঘটিত হয়েছিল ধর্মের নামে, ইসলামের দোহাই দিয়ে। যে কারণে দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধের পর জার্মানি, ইতালি ও ইউরোপে নাৎসী পার্টি ও ফ্যাসিস্ট পার্টি নিষিদ্ধ করা হয় একই কারণে ‘৭২-এর সংবিধান গৃহীত হওয়ার পর বাংলাদেশে জামায়াতে ইসলামী, মুসলিম লীগ ও নেজামে ইসলামসহ সকল ধর্মভিত্তিক রাজনৈতিক দল নিষিদ্ধ হয়ে যায়। কারণ নাৎসী ও ফ্যাসিস্ট পার্টির ‘গেস্টপো’, ‘ব্রাউন শার্ট’, বস্ন্যাক শার্ট প্রভৃতি ঘাতক বাহিনীর আদলে ‘৭১-এ জামায়াত ও তাদের সহযোগীরা শানত্মি কমিটি, রাজাকার, আলবদর, আলশামস ইত্যাদি বাহিনী গঠন করে গণহত্যা, যুদ্ধাপরাধ ও মানবতার বিরম্নদ্ধে অপরাধ সংঘটিত করেছে।

      কিন্তু আমাদের ইতিহাসটা কী হল, শুঁড়িখানার স্বাধীন সহজ সম্মান আজো ফিরে পেলাম না — কিন্তু উগ্র ধর্মীয় আবিলতার সবই ভোগ করতে হল।

  8. মাসুদ করিম - ২৩ এপ্রিল ২০১১ (১২:৫১ অপরাহ্ণ)

    এজন্যই কি হাতিকে পশুদের মধ্যে সবচেয়ে জ্ঞানী ধরা হয়? — হাতি মদ্যপান করে এবং হাতি দুঃখ পেলে কান্না করে, জানাচ্ছেন আমাদের সানু জর্জ মালায়লাম ভাষায় জেকব চিরানের হাতি বিষয়ক বই নিয়ে আলোচনায়।

    The book contains interesting anecdotes which the author came across in his nearly five-decade-long career of studying jumbos.
    He said elephants like liquor, and have many opportunities of indulging in this hobby in the jungles of Kerala, where illicit liquor is brewed by gangs.
    ‘Most of the elephants like to consume sweet and sour foodstuff, and the illicit brew tastes just like that,’ said Cheeran.
    Deep in the forests, elephants often come across illicit brew and they drink it. When it comes to captive elephants, many mahouts even give hard liquor to these elephants and just like humans, the elephants also get intoxicated.’
    He also writes in the book that elephant is perhaps the only animal which cries when it is sad.
    But the animal is not crying every time it is teary-eyed.
    ‘The moisture and the wetness one sees around the eyes of an elephant should not be mistaken for tears every time. Unlike in human beings, elephants do not have the duct that connects the eyes and nose, and the wetness one sees around the eyes is caused by lubrication of the eyes,’ he said.

    আহা! মাহুত আর হাতি মিলে মদ্যপানের এই আসরটা আমি কল্পনায় বেশ দেখতে পাচ্ছি। ভাগ্য ভাল জঙ্গলে আমাদের দেশে সামাজিক মদ্যপান নিষিদ্ধ করা লোকগুলোর কালাকানুন চলে না।

    বিস্তারিত পড়ুন : Elephants love liquor, cry when sad, says new book

  9. মাসুদ করিম - ২ জানুয়ারি ২০১২ (১:২৬ অপরাহ্ণ)

    মন্দায় স্কটল্যান্ডের বিখ্যাত স্কচ হুইস্কির বাজারে কোনো নেতিবাচক প্রভাব পড়েনি বরং শতকরা ২৩ ভাগ ব্যবসা বৃদ্ধি পেয়েছে। এর পুরো অবদান ভারত, চীন ও ব্রাজিলের উঠতি মধ্যবিত্তের। এবং আমাদের দেশে যেহেতু সামাজিক মদ্যপান স্বীকৃত নয় কাজেই আমাদের অবদানের কথা উল্লেখই নেই। কিন্ত এটা নিশ্চিত বাংলাদেশের মদ্যপানেরও এই বৃদ্ধিতে ভূমিকা আছে। সেই ভূমিকাটা কত যদি জানা যেত, তাহলে অর্থনৈতিক দিক থেকে সামাজিক মদ্যপানের হিসাব নিকাশ আরো ভাল ভাবে বুঝিয়ে দেয়া যেত।

    The whisky industry in Scotland, one of the most popular in the world, has not been affected by the economic downturn because of developing overseas markets, especially in India, China and Brazil, a report said.

    Scottish whisky exports increased by 23 percent last year, Sky News reported.

    Whisky has become one of Britain’s biggest exports at a time when the country’s economy was ailing. The drink is now worth over 4.5 billion pounds (Rs.370 billion) a year.

    Every second, 125 pounds (around Rs.10,300) are being poured into the British economy through revenue and jobs centred around whisky.

    “Obviously their economies are doing very, very well. There’s a growing middle class which obviously has growing disposable income,” said Iain Weir, marketing director of the Gelngoyne Distillery, near Loch Lomond in Scotland.

    “They are aspirational with regards to their consumption and I’m delighted to say whisky, and in particular single malt whisky, is very much on their shopping list. I think they very much appreciate the history and the provenance and authenticity that comes with Scotch whisky,” he said.

    লিন্ক : Scotch whisky industry unaffected by recession

  10. মাসুদ করিম - ১৯ মার্চ ২০১২ (১০:০৬ পূর্বাহ্ণ)

    মাঝে মাঝে সত্যি খুব খারাপ লাগে। ভারতীয় লাল/সাদা মদ বেশ মিষ্টি খেতে, এবং পাপর সিঙ্গারা সমোসা পাকোড়ার মতো যত ভাজাভুজি আছে তার সাথে খেতে এই লাল/সাদা মদ (wine) খুবই উপাদেয়। ভারতে আমার প্রিয় পানীয় তালিকায় সবসময়ই থাকে এই লাল/সাদা মদ। ঠিকই বলছেন, ইতালির বিখাত স্বাদপরীক্ষক ও মদসমঝদার। এখন খারাপ লাগে এজন্য, এসব লিখতে লিখতে আবার একটু ঝালিয়ে নিতে না পারলে কারই বা ভাল লাগে।

    Gionata has participated in wine fairs in Milan, London and Universal Studios, LA. He has also worked in a winery in Santa Barbara, California, a County on the Pacific coast known for its vineyards, wineries and tasting rooms. Having sampled wines from Australia, New Zealand and Afghanistan, “Indian wine is sweet unlike the dry wine in other parts of the world and can go well with fried food and appetisers. Hyderabadi finger food such as the ‘chota samosa’, pakodas and fried fish can be perfectly paired with wine. Wine appreciation helps people learn finer nuances so that the next time they sample wine they know how to relish it,” he says.

    Omar Khayyam would have agreed for one.

    পড়ুন : Wine appreciation is an art

  11. মাসুদ করিম - ৩০ এপ্রিল ২০১২ (১০:২২ পূর্বাহ্ণ)

    চিয়ার্স হিলারি। বিস্তারিত দেখুন ও পড়ুন এখানে

  12. মাসুদ করিম - ২৫ জুন ২০১২ (২:৩১ অপরাহ্ণ)

    মদ্যপানের শাস্তি নিয়ে ইরানের আইন : প্রথম দুইবার ৮০ বেত্রাঘাত, তৃতীয়বার মৃত্যুদণ্ড। প্রায়শ্চিত্ত করলে মৃত্যুদণ্ড মওকুফ করে আবার বেত্রাঘাত।

    Under Iran’s interpretation of Islamic sharia law, imposed after its 1979 revolution, a first and second conviction on the charge of drinking alcohol is punishable by a maximum sentence of 80 lashes.

    A third offence risks a death penalty but, if the convicted person repents, the sentence can be commuted to the whipping.

    Only members of Iran’s Christian minorities are exempt from the alcohol laws.

    কিন্তু ইরানে মদের চালান ও মদ তৈরির অবস্থা?

    Despite Iran’s tough penalties, some 60 million to 80 million litres (16 million to 21 million gallons) of alcohol are smuggled into the country each year, of which police seize only around a quarter, according to officials.

    An officer at Iran’s anti-smuggling bureau said in early 2011 that the value of liquor smuggled to Iran was around $730 million per annum. According to Iran’s police chief, Esmaeel Ahmadi Moghadam, the country has some 200,000 alcoholics.

    Alcohol is also covertly manufactured in Iran, sometimes resulting in deaths due to the production methods used.

    তাহলে এইসবের কী মানে? যত্তসব ইসলামি আজাইরামি।

    খবরের লিন্ক : Iran to execute two for alcohol: reports

  13. মাসুদ করিম - ২৫ আগস্ট ২০১২ (১২:৫৭ পূর্বাহ্ণ)

    ১৯৭৭ সালের ফেব্রুয়ারির দিকে লাহোরের এক জনসভায় একজন জুলফিকার আলি ভুট্টো যখন বলেন

    They say I drink. Yes, I drink. I drink alcohol, but at least I don’t drink the people blood.

    এই মিলিট্যান্ট অ্যালকোহলিক বক্তব্যের মধ্য দিয়ে এটাই বোঝা গেছে, কয়েক মাসের মধ্যে এই জুলফিকার আলি ভুট্টোই পাকিস্তানে মদ্যপান ও জুয়াখেলা রাষ্ট্রীয়ভাবে নিষিদ্ধ করবেন এবং শুক্রবারকে সাপ্তাহিক ছুটির দিন ঘোষণা করবেন। আমার চোখে উপমহাদেশের ইতিহাসে জুলফিকার আলি ভুট্টোই ছিলেন সামাজিক মদ্যপানের সবচেয়ে বড় শত্রু।

  14. মাসুদ করিম - ২০ সেপ্টেম্বর ২০১২ (৩:১৮ অপরাহ্ণ)

    কিছু বলতে চাই না আর শুধু এই গ্রাফটি দেখাতে চাই।

    musalco

    • মাসুদ করিম - ৫ ডিসেম্বর ২০১৩ (১:২৩ অপরাহ্ণ)

      Alcohol in Muslim-majority countries: 1
      • Algeria (Completely legal) 2
      • Albania (Completely legal)
      • Azerbaijan (Completely legal)
      • Bahrain (Conditionally legal) 3
      • Bangladesh (Partially legal) 4
      • Bosnia (Completely legal)
      • Brunei (Completely banned)
      • Burkina Faso (Completely legal)
      • Chad (Completely legal)
      • Comoros (Completely legal)
      • Djibouti (NA)
      • Egypt (Completely legal)
      • Gambia (Partially legal) 5
      • Guinea (NA)
      • Indonesia (Completely legal)
      • Iran (Completely banned)
      • Iraq (Conditionally legal) 6
      • Jordan (Completely legal)
      • Kazakhstan (Completely legal)
      • Kosovo (Completely legal)
      • Kuwait (Completely banned)
      • Kyrgyzstan (Completely legal)
      • Lebanon (Completely legal)
      • Libya (Completely banned)
      • Malaysia (Conditionally legal) 7
      • Maldives (Conditionally legal) 8
      • Mali (Completely legal)
      • Mauritania (Completely banned)
      • Mayotte (Completely legal)
      • Morocco (Completely legal)
      • Niger (Completely legal)
      • Oman (Partially legal) 9
      • Pakistan (Partially legal) 10
      • Palestinian territory (Completely legal)
      • Qatar (Partially legal)
      • Saudi Arabia (Completely banned)
      • Senegal (Completely legal)
      • Sierra Leone (Completely legal)
      • Somalia (Completely banned)
      • Sudan (Partially legal) 12
      • Syria (Completely legal)
      • Tajikistan (Partially legal) [13]
      • Tunisia (Completely legal)
      • Turkey (Completely legal)
      • Turkmenistan (Completely legal)
      • UAE (Partially legal) [14]
      • Uzbekistan (Completely legal)
      • Western Sahara (Completely legal)
      • Yemen (Completely banned)

      1 Alcohol use in predominantly Muslim regions of the world increased by 25 per cent between 2005 and 2010.
      2 Alcohol sales are prohibited during the month of Ramazan.
      3 Consumption only allowed at bars and designated restaurants.
      4 Though alcohol is banned in Bangladesh but in 2010, the government allowed the sale of beer that has 5 (or less) per cent alcohol content.
      5 Sale only allowed to non-Muslims.
      6 Only legal in large cities.
      7 Banned in the states of Kelantan and Terengganu. Legal only in licensed restaurants and bars. 8 Legal only at tourist resorts.
      9 Legal at licensed hotel bars in the city of Muscat.
      10 Available to non-Muslims at licensed liquor stores and hotel bars. Sales (through stores) not allowed in the month of Ramazan and on Fridays.
      11 Available to non-Muslims at licensed hotels.
      12 Legal only in the Christian-majority areas in South Sudan.
      [13] Available in hotels, stores and bars but only to non-Muslims.
      [14] Legal in hotels, restaurants and bars in Dubai.
      -Source: Brookston Beer Bulletin

  15. রাজীব আহমেদ - ২১ সেপ্টেম্বর ২০১২ (৪:২৮ পূর্বাহ্ণ)

    চমৎকার একটি লেখা। ধন্যবাদ লেখককে।
    তবে বাংলাদেশে এটা হবার নয়, যেমন সম্ভব নয় শুক্রবার ছুটি বাতিল করার।

    • মাসুদ করিম - ২২ সেপ্টেম্বর ২০১২ (৭:৩৭ অপরাহ্ণ)

      তবে বাংলাদেশে এটা হবার নয়, যেমন সম্ভব নয় শুক্রবার ছুটি বাতিল করার।

      হ্যাঁ, সেটাই। কিন্তু হলে ভাল হত। অবশ্য ওই যে সৈকত আচার্য বলেছিলেন

      আলো আঁধারী ঘরের ঐ বাসিন্দারাও আপনার সাথে না থাকলে অবাক হবেন না যেন, বলে দিলাম কিন্ত। তাদেরও তো একটা সমাজ আছে, নাকি!

      খুব খাঁটি কথা। সামাজিক মদ্যপানের দ্বিবিধ শত্রু, একই কথা শুক্রবারের ছুটির ক্ষেত্রেও প্রযোজ্য। কারা চান, কতটুকু চান — সেটা খুবই গুরুত্বপূর্ণ।

  16. মাসুদ করিম - ৩ জুন ২০১৩ (২:৪৪ অপরাহ্ণ)

    সব মুসলমান প্রশাসকের মতো তুরস্কের এরদোগানও এটা বুঝবেন না যে, মদ্যপান করা মানেই মদ্যপ হওয়া নয়। আমাদের মতো সামাজিক মদ্যপানের প্রতি আকৃষ্ট মানুষদের জন্য মুসলমান প্রশাসকেরা সব জায়গায় সব সময় এমন এক মূঢ়তার দ্বারা পরিচালিত যে, সব মুসলমান প্রশাসকের কাছ থেকে ‘এই অসম্মান’ পাওয়া ছাড়া আমাদের আর কিছুই পাওয়ার নেই।

    • মাসুদ করিম - ২২ জুন ২০১৩ (১:৪৪ অপরাহ্ণ)

      অসম্মানের তো শেষ নেইই, সেসাথে আছে বেশি দামে অ্যালকোহল কেনা। তুরস্কে অ্যালকোহলের দাম ইউরোপের অন্য দেশগুলোর চেয়ে ১০/২০ % নয় একেবারে ২০৫ % বেশি!

      Turkish consumers pay more than double the price for alcoholic beverages compared with those in the European Union countries, while many food items stand at a lower price, a recent survey by the state-run Turkish Statistical Institute (TÜİK) showed.

      TÜİK’s figures released on June 21 showed that the average price of an alcoholic beverage was 205 percent more than the European average.

      The country groups included in the comparison were the 27 member states of European Union, the European Free Trade Association (EFTA) countries (Switzerland, Iceland and Norway), one acceding state (Croatia), four candidate countries (the former Yugoslav Republic of Macedonia, Montenegro, Serbia and Turkey), and two potential candidate countries (Albania, Bosnia and Herzegovina).

      Alcohol consumption has been a hot topic for Turkey in recent months after the Turkish Government’s proposal to amend a law restricting the sales of alcoholic beverages.

      The Turkish Government also has a policy to raise the taxes for alcoholic products.

      “If the prices are increasing, excuse us, but we have to. In the ÖTVs [the Special Consumption Tax], this [taxation on alcoholic beverages] is our most important source of income, as we don’t have any oil wells. That’s why we are working on this,” Turkish Prime Minister Erdoğan had said, speaking at the Global Alcohol Policy Symposium held in Istanbul on April 26.

      On May 24, Parliament’s General Assembly adopted the alcohol bill proposed by the ruling Justice and Development Party (AKP), tightening restrictions on the sale and advertising of alcoholic beverages. Retailers will no longer be allowed to sell alcoholic beverages between 10 p.m. and 6 a.m., according to the bill.

      বিস্তারিত পড়ুন : Alcohol price in Turkey ‘double’ Europe average

  17. মাসুদ করিম - ৫ আগস্ট ২০১৩ (৪:০৮ অপরাহ্ণ)

    ইউএস পোস্টঅফিস মানে আমেরিকার ডাকঘর অ্যালকোহল ঘরে পৌঁছে দেয়ার সেবা প্রচলন করার কথা ভাবছে, অ্যালেন গিন্সবার্গ বেঁচে থাকলে প্লেবয় ম্যাগাজিনে নির্ঘাত ইউএস অ্যাডমিনিস্ট্রেশনকে তুলোধুনো করতেন দেবভোগ্য ‘হাশিশ’ ‘সিদ্ধি’ ঘরে পৌঁছে না দিয়ে ‘বিরক্তিকর আরক’ ‘রদ্দি স্পিরিট’ ঘরে পৌঁছে দেয়ার জন্য।

    কিন্তু আমার বা আমাদের কী হবে? আমাদের ডাকঘর থানার সাথে হয়তো চুক্তিবদ্ধ হবে — আমাদের মতো পারমিট ছাড়া মদ্যপায়ীদের ২৪x৭x৩৬৫ রাউন্ড দ্য ক্লক গ্রেপ্তারি পরোয়ানা ঘরে পৌঁছে দেয়ার সেবা প্রচলন করবে, আর এভাবে আমাদের গ্রেপ্তারকার্য ত্বরান্বিত করার মহতী উদ্যোগে সহায়তার হাত বাড়ানোর পাশাপাশি থানার কাছ থেকে সার্ভিস চার্জ গ্রহণের মাধ্যমে অর্থ সমাগমের একটা ভাল খাত সৃষ্টি করে জাতীয় রাজস্ব বোর্ডের পুরস্কারের জন্য মনোনীত হবে।

  18. মাসুদ করিম - ৫ আগস্ট ২০১৩ (৬:১৬ অপরাহ্ণ)

    সামাজিক ব্যবসার জন্য বাংলাদেশের ইউনূস প্রসিদ্ধ, সামাজিক মদ্যপান বাংলাদেশে নিষিদ্ধ – বাঙালির ব্যবসায় মন খুব ভাল, আচাইয্য প্রফুল্লচন্দ্র বাঁইচা থাকলে খুশি অইত।

  19. Pingback: স্বাস্থ্য পান | মাসুদ করিম

  20. মাসুদ করিম - ৫ ডিসেম্বর ২০১৩ (১০:১৯ পূর্বাহ্ণ)

    আমাদের ‘দোচোয়ানি’-র সম্ভাবনা ছিল, কিন্তু আমরা তো ‘এই অসম্মান’-এর ভেতর বসবাস করি।

  21. মাসুদ করিম - ১২ ডিসেম্বর ২০১৩ (১:৩৮ অপরাহ্ণ)

  22. মাসুদ করিম - ৪ মার্চ ২০১৪ (১২:৪৯ অপরাহ্ণ)

  23. মাসুদ করিম - ২৫ মার্চ ২০১৪ (১২:৫৭ অপরাহ্ণ)

    আমরা কোনো দিন এই উদযাপন করতে পারব?

  24. মাসুদ করিম - ২৬ মে ২০১৪ (৯:৫৬ অপরাহ্ণ)

  25. মাসুদ করিম - ২৩ জুলাই ২০১৪ (৫:১৫ অপরাহ্ণ)

    Alcohol improves your sense of smell – in moderation

    How do you smell after a drink? Quite well, it turns out. A modest amount of alcohol boosts your sense of smell.

    It is well known that we can improve our sense of smell through practice. But a few people have also experienced a boost after drug use or brain damage. This suggests our sensitivity to smell may be damped by some sort of inhibition in the brain, which can be lifted under some circumstances, says Yaara Endevelt of the Weizmann Institute of Science in Rehovot, Israel.

    To explore this notion, Endevelt and her colleagues investigated whether drinking alcohol – known to lower inhibitory signals in the brain – affected the sense of smell.

    In one odour-discrimination test, 20 volunteers were asked to smell three different liquids. Two were a mixture of the same six odours, the third contained a similar mixture with one odour replaced. Each volunteer was given 2 seconds to smell each of the liquids and say which was the odd one out. The test was repeated six times with each of three trios of liquids. They were then given a drink that consisted of 35 millilitres of vodka and sweetened grape juice, or the juice alone, before repeating the experiment with the same set of liquids.

    One too many

    In a second experiment with a similar drinking structure, the same volunteers were asked which of three liquids had a rose-like odour. The researchers increased the concentration of the odour until the volunteers got the right answer three times in a row.

    Endevelt’s team then tested the senses of people in pubs around the cities of Rehovot and Herzliya. Forty-five volunteers were asked to perform a scratch-and-sniff test, in which they had to identify which one of three odour compounds was different from the other two.

    Across all three experiments, the team found a correlation between a person’s blood-alcohol level and score on tests of odour detection and discrimination. But while low levels of alcohol improved performance, too much – about two units within an hour for women and three for men – led to a significant reduction in sense of smell.

    Endevelt hopes to use brain scans to identify the mechanisms underlying this effect. “If we knew more about the mechanisms that caused this inhibition, then it might shed light on why some people lose their sense of smell and may be helpful for some kinds of olfactory loss,” she says.

  26. মাসুদ করিম - ২৯ অক্টোবর ২০১৪ (১০:৩৮ অপরাহ্ণ)

    আরো অসম্মান

  27. মাসুদ করিম - ৩০ অক্টোবর ২০১৫ (৪:৪৭ অপরাহ্ণ)

    আরেক অসম্মানের সূত্রে এই টুইট।

  28. মাসুদ করিম - ৬ এপ্রিল ২০১৬ (৫:০৪ অপরাহ্ণ)

  29. মাসুদ করিম - ২ সেপ্টেম্বর ২০১৬ (১:০৯ অপরাহ্ণ)

    Womaniya empowerment: How prohibition has overturned the gender dynamic in Bihar’s villages

    On the ground, the moral and legal injunction against alcohol has given Bihari women an unprecedented voice in village affairs.

    “If we see any man drunk now, we make him do utha-baithi” or squats, said Sushma Devi belligerently as the women of her village behind her nodded approvingly. “And if he still doesn’t listen, we get together and slap him, even whack him with a jhadoo [broom]. We women are quite clear: there will be no drinking in our village.”

    Sushma Devi is the head of a woman’s self-help group in Khaje Etwar Saray village, Nalanda formed under the Bihar government’s rural livelihood programme, Jeevika. The women of the village had effectively implemented prohibition two months before the state law kicked in on April 1.

    “Now we have our own identity,” continued Sushma, wagging her finger. “Earlier people would address us as someone’s wife or mother. Now people call me by my own name, ‘Sushma Devi’.”

    Bihar’s new prohibition law has popularly been described as “draconian” in the English-language press. A new law, passed by the Assembly on August 1, makes the penalties even harsher, imposing near-arbitrary forms of collective punishment. Yet, while the mechanics of the law have been highlighted, the social drivers behind it have been less so. On the ground, prohibition is being pushed by an unprecedented political mobilisation of Bihari women. Whatever the actual effect this law will have on the availability of alcohol, by making the state bend directly to the voice of rural women, it has fundamentally changed the gender dynamic in Bihar’s villages.

  30. মাসুদ করিম - ৩ মে ২০১৭ (৮:৩৪ অপরাহ্ণ)

    চোরাস্রোত

    দীঘার সমুদ্রে মৃত্যুমিছিল লেগেই থাকে। প্রায় রোজই একজন না একজন তলিয়ে যায় জলে। বিশেষ করে কমবয়সিরা এই মর্মান্তিক দুর্ঘটনার শিকার হয়। আজকাল পত্রিকার এক প্রতিবেদনে সমুদ্র বিশেষজ্ঞরা বলেছেন, দীঘার সমুদ্রে রয়েছে ‘‌রিপ কারেন্ট’‌। কিছু বোঝার আগেই, পায়ের তলার বালি সরিয়ে দেয় এই কারেন্ট। ‘‌‌আনন্দস্নান’‌ মৃত্যু হয়ে আলিঙ্গন করে। প্রতিবেদন ভরসা দিয়েছে, সমুদ্রের ‘‌রিপ কারেন্ট’ এলাকা চিহ্নিত করার কাজ শুরু হয়েছে। সেখানে পর্যটকদের নামতে দেওয়া হবে না। এটি অবশ্যই বৈজ্ঞানিক উদ্যোগ। বিজ্ঞান আমাদের বলে দিচ্ছে ওদিকে বিপদ, সুতরাং ও পথে যাওয়া আটাকাতে হবে। ঠিক পদক্ষেপ। কিন্তু এটাই সব নয়। এটাই শেষ নয়। দীঘার মতো অতি চমৎকার, অতি জনপ্রিয় পর্যটক কেন্দ্রটিকে ‘‌মৃত্যু’র হাত থেকে বঁাচাতে হলে চাই সচেতনতা, চাই প্রশাসনিক কড়াকড়ি। নইলে এর বদনাম কোনও দিনও দূর হবে না। দীঘার সমুদ্রে মৃত্যু নিয়ে যদি কোনও পরিসংখ্যান তৈরি করা হয়, তাহলে দেখা যাবে ‘‌রিপ কারেন্ট’ নয়, মৃত্যুর জন্য বহুলাংশে দায়ী লাগামছাড়া উচ্ছৃঙ্খলতা ও উদ্দামতা। মত্ত অবস্থায় সমুদ্রস্নানের বাহাদুরি। ‘‌রিপ কারেন্ট’ এই ‘‌বাহাদুর’–দেরই আদর করে টেনে নিয়ে যায় অতলে। আশ্চর্য এবং দু্ঃখের ঘটনা হল, শিক্ষিত ছেলেমেয়েরাও এই কাজ করছে। তারাও মত্ত অবস্থায় নেমে যাচ্ছে জলে! সচেতন হতে হবে। গাড়ি যেমন মদ খেয়ে চালানো যায় না, সমুদ্রস্নানও নয়। এটা বুঝতে হবেa। এর সঙ্গে প্রয়োজন কড়া প্রশাসন। কড়া আইন। সমুদ্র সৈকতে কাউকে বেসামাল হতে দেখলেই ধরতে হবে। নইলে হাজার ‘‌রিপ কারেন্ট এলাকা’‌ চিহ্নিত করেও লাভ হবে না। জলে নয়, চোরাস্রোতকে আটকাতে হবে তার আগেই।‌‌

  31. মাসুদ করিম - ১ জুলাই ২০১৭ (৭:৪৫ অপরাহ্ণ)

    You might be surprised to learn that about one in five alcoholics lead ostensibly normal and successful lives. In fact, many are considered over-achievers by their peers. But these so-called high-functioning alcoholics, in spite of their apparent success, have dependence on alcohol that-left untreated-will ultimately ruin their lives. Given the similarity between social drinkers and high-functioning alcoholics, distinguishing between these two types of drinkers becomes a challenge. If you have ever wondered whether you might be an alcoholic, this article will help understand what makes an alcoholic different from a social drinker.

    Social Drinkers vs. Alcoholics: Social drinkers behave differently than alcoholics in several ways. For one thing, few social drinkers ever wonder if they are alcoholics. Alcohol has so little significance in their lives that they do not even think of asking the question.

    Social drinkers can also go without alcohol for long periods-drinking copiously all weekend, for example, and then going weeks without even thinking about alcohol. However, not all alcoholics drink every day. Instead, some alcoholics prefer intermittent binge drinking, which is defined as drinking five or more drinks (for men) or four or more drinks (for women) in one sitting – and then they are constantly thinking about, planning, or looking forward to their next drinking session.

    Another trait of social drinkers that often baffles alcoholics is their ability to let a drink sit untouched. A few years ago while sitting in a business class on a flight to Tokyo, I watched in disbelief as the man next to me ordered a glass of top-quality cognac, took a sip, and then let it sit for 30 minutes until the flight attendant took it away. This is definitely not typical behaviour for us, the alcoholics.

    Finally, while some social drinkers might have a peg of beer or a glass of wine after work, the vast majority never drink alone. In fact, drinking alone is a strong sign that someone is – or will become – an alcoholic.

  32. মাসুদ করিম - ৬ ফেব্রুয়ারি ২০১৯ (১০:০২ পূর্বাহ্ণ)

Have your say

  • Sign up
Password Strength Very Weak
Lost your password? Please enter your username or email address. You will receive a link to create a new password via email.
We do not share your personal details with anyone.